পশু কোরবানি কি ধর্ম হতে পারে?

গত ২২শে সেপ্টেম্বর ভারতের ভুপালে পশুপাখীর অধিকার সংরক্ষণ কর্মীরা তাজ-উল-মসজিদের সামনে, ঈদ-আল-আধাতে মুসলমানদের পশু কোরবানি না দেবার অনুরোধ সম্বলিত বাণীর প্ল্যাকার্ড নিয়ে শান্তিপূর্ণভাবে দাঁড়িয়ে ছিলেন। তাঁদের বক্তব্য ছিল নিরামিষ আহার স্বাস্থ্যের পক্ষে ভালো তো বটেই, উপরন্তু পরিবেশ, প্রকৃতি ও পশুপাখীদের জন্যেও ভালো। বেনাজির সুরাইয়া ছিলেন এই কর্মীদের একজন। তাঁর পরিধানে ছিল সবুজ রঙের হিজাব এবং লেটুস পাতা দিয়ে মোড়া পরিচ্ছ্দ। তাঁর হাতের প্ল্যাকার্ডে লেখা ছিল Make Eid happy for all- Try Vegan, অর্থাৎ ঈদ যেন সবার জন্য আনন্দময় হোক, নিরামিষ খাবার খেয়ে দেখার চেষ্টা করতে পারেন। Continue reading →

Can slaughter be religion?

A few days ago, on September 22, a group of Indian animal rights activist went to the Taj-ul-Masjid in Bhopal, one of the largest mosques on the subcontinent, and tried to persuade Muslims to celebrate a vegan Eid al-Adha this year, by pointing out the many benefits of a plant-based diet for human health, the environment, and the welfare of nonhuman animals. One of the activists, a Muslim woman named Benazir Suraiya, wore a green hijab and an Islamic dress covered in lettuce leaves, and held a sign that said, “Make Eid Happy For All: Try Vegan.” The program was organized by PETA India, a Mumbai-based animal rights organization that operates under the principle that animals are not ours to eat, wear, experiment on, or use for entertainment, and that has organized similar programs on other religious occasions in the past, including Christmas, Easter, Diwali, and Janmashtami. This time, however, things turned violent. A mob formed and started to attack the group of female activists. The women were punched, and hit with shoes, and stones were thrown at them, prompting them to flee the scene while police tried to contain the mob. Disturbingly, some people, including members of the media, seem to believe that the women deserved to be assaulted, and the police in fact booked Ms. Suraiya and two others on charges of hurting religious sentiments. All in all, a woefully common story that would be a good starting point for a discussion of the delicate feelings and sense of entitlement of some religious folk, and the rampant disregard for the rights to freedom of expression and peaceful protest. But I do not want to talk about that here. Instead, in the spirit of the free exchange of ideas, let us have the conversation that was successfully stifled in India. Continue reading →

মুসলিম ভাইবোনদের প্রতি খোলা চিঠি

প্রিয় মুসলিম ভাই ও বোনেরা, মুসলিম জাতির জন্য আশির্বাদ ও বছরের আধ্যাত্মিক একটি উৎসব হিসেবে কুরবানী ঈদ আমাদের দ্বারপ্রান্তে। মক্কার পবিত্র মাটিতে লক্ষ লক্ষ ধর্মপ্রাণ মুসলমান পবিত্র হজ্জ্ব পালনের পরপরই আমাদের দেশে এই উৎসব পালিত হয়। আত্মীয় ও বন্ধুবান্ধবেরা একসাথে নামাজ আদায় করে, উপহার বিনিময় করে এবং ঈদের বিশেষ খাবার উপভোগ করে। এ বছরের এই বিশেষ দিনটি উদ্‌যাপনের প্রাক্কালে আমরা আপনাদের খোলা মন ও হৃদয় নিয়ে দিনটি পালনের কিছু দিক পুনঃবিবেচনা করার আমন্ত্রণ জানাচ্ছি। Continue reading →

Compassionate Eid: An open letter

Dear Muslim Brothers and Sisters, we are approaching a blessed and spiritual time of the year, Qurbani Eid, which comes after millions of devout Muslims complete their pilgrimage to the holy grounds of Mecca. Families and friends will come together for prayers, exchange gifts and enjoy special food. As we prepare to take part in this year’s holiday, we would like to invite you to reexamine some aspects of how it is celebrated with an open mind and an open heart. Continue reading →